Pre-loader logo

অ্যামেচার চ্যাম্পিয়নস ট্রফি শুরু ১৩ অক্টোবর

অ্যামেচার চ্যাম্পিয়নস ট্রফি শুরু ১৩ অক্টোবর

আগামী ১৩ অক্টোবর পর্দা উঠতে যাচ্ছে দেশের অপেশাদার খেলোয়াড়দের সবচেয়ে জনপ্রিয় ক্রিকেট টুর্নামেন্ট অ্যামেচার চ্যাম্পিয়নস ট্রফির। টুর্নামেন্টটির দ্বিতীয় আসরে শিরোপা জয়ের লড়াইয়ের লক্ষ্যে খেলবে ১৬টি দল। ব্যতিক্রমধর্মী এ টুর্নামেন্টের আয়োজক বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) ফ্র্যাঞ্চাইজি ও ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন রংপুর রাইডার্স।
গত বৃহস্পতিবার রাতে জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে রাজধানীর সাঁতারকুল এলাকার ইউনাইটেড সিটিতে টুর্নামেন্টটির জার্সি ও ট্রফি উন্মোচন করেন দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগোষ্ঠী বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান ও রংপুর রাইডার্সের কর্ণধার সাফওয়ান সোবহান।
রংপুর রাইডার্সের চেয়ারম্যান মোস্তফা আজাদ মহিউদ্দিন, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ইশতিয়াক সাদেক, নির্বাহী পরিচালক ড. আনোয়ারুল ইকবাল মিতু এবং ১৬টি দলের অধিনায়ক উপস্থিত ছিলেন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে।
আয়োজকরা জানান, সাবেক ক্রিকেটারদের নিয়ে আয়োজিত টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের এ টুর্নামেন্টে খেলতে পারবেন অপেশাদার ক্রিকেটারও। প্রতিটি খেলায় অনুসরণ করা হবে আইসিসির টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের সব নিয়ম-কানুন। রাজধানীর সিটি ক্লাব মাঠ, গুলশান ইয়ুথ ক্লাব মাঠ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে অনুষ্ঠিত হবে খেলা।
অ্যামেচার চ্যাম্পিয়নস ট্রফির এ আসরে অংশ নিচ্ছে এমএই ক্রিকেট টিম, লাইলা ক্রিকেট ক্লাব, টেক রিপাবলিক, কমনওয়েলথ সিসি, এসপিজি বয়েজ, রেড কোর্ট সিসি, হক ব্রাদার্স, ট্রাভেল বুকিং বিডি, বেঙ্গল তাজ, কাজী কিংস, টোটাল টাইগার ক্রিকেট, ঢাকা ইন্ডিয়ানস, র‌্যানংকন, গুলশান ইয়ুথ ক্লাব, কেসি সুপারস্টার এবং গ্রিন স্যালিংন্স।
রংপুর রাইডার্সের কর্ণধার ও বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফওয়ান সোবহান বলেন, ‘প্রথম আসর আয়োজনের পর থেকে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে টুর্নামেন্টটি। এখানে যেসব ক্রিকেটার খেলছেন, তাঁরা একসময় পেশাদার ক্রিকেট খেলতেন। কিন্তু এখন তাঁদের খেলার কোনো সুযোগ নেই। আমরা চাইছি তাঁদের নিয়ে ভালো ক্রিকেট খেলতে।’
রংপুর রাইডার্সের নির্বাহী পরিচালক আনোয়ারুল ইকবাল মিতু জানান, প্রথম আসরে ১২টি দল অংশ নিয়েছিল। এবার ১৬টি দল খেলবে। আগামীতে রাজধানীর বাইরে এবং পরে দেশের বাইরে টুর্নামেন্টটি আয়োজনের পরিকল্পনা রয়েছে। চ্যাম্পিয়ন দলকে ট্রফি ও দুই লাখ টাকার প্রাইজ মানি এবং রানার-আপ দলকে ট্রফি ও এক লাখ টাকা দেওয়া হবে।
একই দিনে গত আসরের ফাইনালিস্ট দুই দলের প্রতিনিধির হাতে ট্রফি ও দেড় লাখ টাকার চেক তুলে দেন সাফওয়ান সোবহান।

Copyright © 2020 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.