Pre-loader logo

জন্মদিনে শুভেচ্ছাসিক্ত ডেইলি সান

জন্মদিনে শুভেচ্ছাসিক্ত ডেইলি সান

জন্মদিনে সুধীজন, পাঠকসহ অগণিত শুভাকাঙ্ক্ষীর ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হলো ইংরেজি দৈনিক দ্য ডেইলি সান। জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীসহ মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী, কূটনীতিক, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার শুভানুধ্যায়ীরা গতকাল বুধবার সকাল থেকে রাত পর্যন্ত পত্রিকাটির কার্যালয়ে এসে শুভেচ্ছা জানান। তাঁদের পদচারণে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপের পত্রিকাটির কার্যালয়ে দিনভর ছিল উৎসবমুখর পরিবেশ।
স্পিকার ড. শিরীন শারমিন সান পরিবারের সবাইকে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেন, দেশের অন্যতম ইংরেজি দৈনিক হিসেবে ডেইলি সান পাঠকের কাছে জায়গা করে নিয়েছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশ দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে, আজকের বাংলাদেশ সমগ্র বিশ্বে উন্নয়নের বিস্ময়। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক ও সামাজিক অগ্রগতির বিষয়গুলো তুলে ধরতে ডেইলি সান ভূমিকা রাখবে।
সকালে তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম ও ঢাকায় নিযুক্ত ভারতের হাইকমিশনার হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা, ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত হোয়াও তাবাজারা ডি অলিভেরাসহ কয়েকটি দেশের কূটনীতিকদের নিয়ে কেক কেটে অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা করেন বসুন্ধরা গ্রুপ ও ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) সায়েম সোবহান আনভীর ও তাঁর সহধর্মিণী সাবরিনা সোবহান। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডেইলি সান সম্পাদক এনামুল হক চৌধুরী, কালের কণ্ঠ সম্পাদক ইমদাদুল হক মিলন, বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম, কালের কণ্ঠ’র নির্বাহী সম্পাদক মোস্তফা কামাল, ডেইলি সানের নির্বাহী সম্পাদক শিয়াবুর রহমান শিহাব, বাংলানিউজটোয়েন্টিফোরডটকমের উপদেষ্টা সম্পাদক জুয়েল মাজহার, নিউজ টোয়েন্টিফোরের নির্বাহী পরিচালক হাসনাইন খুরশেদ ও রেডিও ক্যাপিটালের নির্বাহী পরিচালক মেহেদী মালেক সজীব।
তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম শুভেচ্ছা বক্তব্যে বলেন, ‘আশা করি ডেইলি সান পরিবার সব সময় নীতি-নৈতিকতা মেনে সাংবাদিকতার মাধ্যমে দেশের উন্নয়নে আরো এগিয়ে যাবে। সাংবাদিকতার ক্ষেত্রে নানা রকম উদ্ভাবনী প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখবে।’
শুভেচ্ছা বক্তব্যে ভারতীয় হাইকমিশনার শ্রিংলা বলেন, ‘ডেইলি সান একটি মানসম্পন্ন পত্রিকা। প্রতিদিন সকালে প্রথমেই আমি এ পত্রিকাটি পড়ি। তারপর অন্য পত্রিকা। ডেইলি সান ব্যাপকভাবে ইতিবাচক কথা তুলে ধরে বলে আমি পত্রিকাটি পছন্দ করি।’
সাবেক রাষ্ট্রপতি ও বিকল্পধারা বাংলাদেশের সভাপতি অধ্যাপক এ কিউ এম বদরুদ্দোজ্জা চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশ এমন একটি পর্যায়ে এসে পৌঁছেছে, যেকোনো স্বপ্ন বাস্তবায়ন করা কঠিন। ডেইলি সানের কর্মীদের শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘আপনারা যে পথ পাড়ি দিয়েছেন তা গৌরবের ছিল, সুন্দর ছিল। আমি আশা করি আপনারা কৈশোর উত্তীর্ণ হবেন। কৈশোরের যে স্বপ্ন সেটা বাস্তবায়নের চেষ্টা করবেন। আজকে বাংলাদেশ এমন একটি পর্যায়ে এসে পৌঁছেছে, যেকোনো স্বপ্ন বাস্তবায়ন করা কঠিন। যে স্বপ্ন ঘুমিয়ে দেখে সেই স্বপ্নের কোনো মানে নেই। যে স্বপ্ন লোক জেগে দেখে, আমরা সেই স্বপ্নে জাগরিত হওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।’
বিএনপি নেতা ও সাবেক মন্ত্রী চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান জি এম কাদের, মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার, আওয়ামী লীগের উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিনসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল এবং সামাজিক সংগঠনের নেতারা শুভেচ্ছা জানান। জাপান, ভিয়েতনাম, সৌদি আরব, আরব আমিরাত, জার্মানিসহ ঢাকায় নিযুক্ত বিভিন্ন দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত ও কর্মকর্তারা ডেইলি সান পত্রিকাটির কার্যালয়ে এসে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। বাসসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কালাম আজাদ, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি সাইফুল ইসলামসহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন। ২০১০ সালের ২৪ অক্টোবর সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ স্লোগান নিয়ে আত্মপ্রকাশ করে ডেইলি সান।

Copyright © 2020 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.