Pre-loader logo

দুস্থদের ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে বসুন্ধরা

দুস্থদের ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে বসুন্ধরা

দুস্থদের ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে বসুন্ধরা গ্রুপ। করোনাভাইরাসের প্রভাবে কর্মহীন হয়ে পড়া দরিদ্র ও দুস্থ মানুষদের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ অব্যাহত রেখেছে দেশের অন্যতম এ শিল্পগ্রুপ। গতকাল আরও ১৭০০ দরিদ্র, অসহায় ও দুস্থ পরিবারের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী দিয়ে সহায়তা করেছে তারা। রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরার (আইসিসিবি) থেকে এ ত্রাণসামগ্রী হস্তান্তর করা হয়। পরে ওই সব খাদ্যসামগ্রী ঢাকার চার ওয়ার্ডে দুস্থদের ঘরে ঘরে পৌঁছে দেওয়া হয়। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ১৭, ১৮, ৩৯ ও ৪৮ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলদের কাছে আইসিসিবির গুলনকশা হল থেকে খাদ্যসামগ্রী হস্তান্তর করেন বসুন্ধরা গ্রুপের সিনিয়র এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর লিয়াকত হোসেন, সিনিয়র এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর (অ্যাকাউন্টস অ্যান্ড ফাইন্যান্স) ইমরুল হাসান, এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর (এস্টেট) মাহবুব উর রহমান তুহিন ও এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর (ল্যান্ড) নাজমুল আলম ভূঁইয়া।
এ সময় এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর মাহবুব উর রহমান তুহিন বলেন, ‘জাতির যে কোনো সংকটে বসুন্ধরা গ্রুপ জনগণের পাশে দাঁড়ায়। এরই ধারাবাহিকতায় এবারও করোনাভাইরাসের সংকট মোকাবিলায় বসুন্ধরা গ্রুপ অতীতের মতো গরিব ও অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছে। আজ (গতকাল) আমরা দ্বিতীয় পর্যায়ে এলাকার জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে ১৭০০ দুস্থ পরিবারের মধ্যে ত্রাণসামগ্রী বিতরণের জন্য হস্তান্তর করলাম।’ তিনি বলেন, ‘এর আগে ২৯ মার্চ প্রথম পর্যায়ে জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে ২০০০ পরিবারের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছি। পর্যায়ক্রমে ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম দেশব্যাপী পরিচালনা করা হবে।’ প্রতিটি পরিবারকে ১০ কেজি মিনিকেট চাল, দুই কেজি মসুর ডাল, এক লিটার সয়াবিন তেল, দুই কেজি পিয়াজ, দুই কেজি আলু, ৫০০ গ্রাম রসুন ও ৫০০ গ্রাম আদা দেওয়া হয়েছে।
ত্রাণসামগ্রী বিতরণের সময় ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ১৮ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর জাকির হোসেন বাবুল বলেন, ‘বসুন্ধরা গ্রুপের পক্ষ থেকে ১৮ ওয়ার্ডের দিনমজুর, দুস্থ ও গরিব মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করায় আমার পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। দেশের ক্রান্তিলগ্নে সব সময় আমরা বসুন্ধরা গ্রুপ থেকে সহায়তা পেয়ে এসেছি। এবারও এর ব্যতিক্রম ঘটেনি।’
ত্রাণ গ্রহণের সময় ১৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইসহাক মিয়া বলেন, ‘বসুন্ধরা গ্রুপ জনগণের কল্যাণে কাজ করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় এবারও অসহায় মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে তারা।’
৩৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম বাসেক বলেন, ‘দেশের সংকটময় মুহূর্তে বসুন্ধরা গ্রুপ সব সময় ত্রাণ বিতরণ করে থাকে। আমরা আশা করছি, যত দিন এ বিপদ থাকবে বসুন্ধরা গ্রুপ আমাদের সহায়তা করে যাবে।’ ৪৮ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মাসুদুর দেওয়ান বুলবুল বলেন, ‘দেশ ও মানুষের কল্যাণে বসুন্ধরা গ্রুপ কাজ করে এটি শুধু তাদের স্লোগানে নয়, বাস্তবেও এটি তারা প্রমাণ করেছে।’

Copyright © 2020 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.