Pre-loader logo

নতুন একাডেমির সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন রফিক

নতুন একাডেমির সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন রফিক

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ছেড়েছেন ১২ বছর আগে, ঘরোয়া ক্রিকেটও ছেড়ে দিয়েছেন ১০ বছর হয়ে গেছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত বাংলাদেশ ক্রিকেটের অন্যতম সেরা বাঁহাতি স্পিনার মোহাম্মদ রফিক দেশের কোন ক্রিকেটার গড়ে তোলার কাছে যুক্ত হতে পারেননি। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) তাকে উপেক্ষাই করেছে কোন এক অজানা কারণে। অথচ কেনিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ানডে জয় এবং জিম্বাবুইয়ের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্ট জয়ের অন্যতম নায়ক ছিলেন রফিক। শুক্রবার এক লাইভ অনুষ্ঠানে অবশ্য তিনি জানিয়েছেন অচিরেই নতুন করে গড়ে ওঠা এক ক্রিকেট একাডেমির সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন তিনি। সেই ক্রিকেট একাডেমিটি করতে যাচ্ছে দেশের অন্যতম বড় কর্পোরেট হাউস ‘বসুন্ধরা গ্রুপ’। সেখানে রফিককে শুভেচ্ছা দূত হওয়ার প্রস্তাব দেয়া হয়েছে।

বিসিবি রফিকের মূল্যায়ন করতে না পারলেও ঘরোয়া ক্রিকেটে এখনও তার চাহিদা অনেক। বিভিন্ন ক্লাবের হয়ে যেমন কাজ করেছেন তেমনি ফ্র্যাঞ্চাইজি আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) টি২০ আসরেও কোচ হিসেবে কাজ করেছেন রফিক। তবে ১২ বছর আগে ক্রিকেট ছাড়ার পরও বিসিবি থেকে কোন দায়িত্ব পাননি তিনি। জাতীয় দল দূরের কথা, না পেয়েছেন হাই পারফর্মেন্স ইউনিট (এইচপি), ‘এ’ দল কিংবা অনুর্ধ-১৯ দলেও। কিছুদিন আগেও এক সাক্ষাতকারে রফিক তাই আক্ষেপ করে বলেছিলেন, ‘আমি মাঠে কাজ করতে চাই। তরুণ প্রজন্মকে আমি যা জানি সেসব শেখাতে চাই। বিসিবির কোন কর্মকর্তা হতে চাই না।’ কিন্তু এরপরও কোন কাজ হয়নি। শুক্রবার রাতের লাইভ আড্ডায় তিনি বলেন, ‘১২ বছর হয়ে গেল, বিসিবিতে কিছু হলো না। জানি না আল্লাহ কতদিন হায়াত দেবেন। এখন আমি এ বছর শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের কোচ হিসেবে কাজ করছি, নিজে ‘ফ্রাইডে ক্রিকেট’ খেলছি। বসুন্ধরা একটি বড়সড় প্রকল্প হাতে নিয়েছে। বসুন্ধরার মালিক শাহ আলম সাহেবের ছেলের সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তিনি আমাকে বলেছেন, তারা নিজ উদ্যোগে একটি স্টেডিয়াম নির্মাণ করবেন। একটি ক্রিকেট একাডেমিও তৈরি করা হবে। তারা আমাকে জানিয়েছেন, আমরা এখানে একাডেমি করব, তাতে আপনি শুভেচ্ছাদূত হিসেবে থাকবেন। আজীবন কাজও করে যাবেন নিজের মতো করে। আমি তাদের প্রস্তাব পেয়ে খুব খুশি। সানন্দে রাজি হয়েছি। বোর্ডে কোচের চাকরির আশা ছেড়ে দিয়েছি। এখন আগামীতে বসুন্ধরার ক্রিকেট একাডেমি কেন্দ্রিক চিন্তা-ভাবনাই করছি।’

Copyright © 2020 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.