Pre-loader logo

সেরা 'মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর'

সেরা 'মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর'

বসুন্ধরা খাতা-কালের কণ্ঠ ‘জাতীয় স্কুল বিতর্ক প্রতিযোগিতা-২০১৮’ গ্র্যান্ড ফিনালেতে বিজয়ী হয়েছে মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর। আজ শুক্রবার বিকাল ৩টায় ফাইনাল পর্বের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। ফাইনালে বিজয়ী দলের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করে রানার্স-আপ হওয়ার গৌরব অর্জন করে আদমজী ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ। তৃতীয় স্থানটি দখল করেছে ব্লু-বার্ড স্কুল অ্যান্ড কলেজ-সিলেট।
বিজয়ী দল পুরস্কার হিসেবে পাচ্ছে এক লাখ টাকা। রানার্স আপ ৬০ হাজার এবং তৃতীয় দল পাচ্ছে ৩০ হাজার টাকা।
ফাইনাল পর্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফওয়ান সোবহান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কালের কণ্ঠ সম্পাদক ইমদাদুল হক মিলন। উপস্থিত ছিলেন কালের কণ্ঠ নির্বাহী সম্পাদক মোস্তফা কামাল। আরো উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা গ্রুপ ও কালের কণ্ঠের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ। তাঁরা বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।
এর আগে দ্বিতীয় রাউন্ডে প্রতিযোগিতার মাধ্যমে সেমিফাইনালে যায় আদমজী ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ ও মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর।
গ্র্যান্ড ফিনালেতে অংশগ্রহণ করে দেশের ১৬টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ঢাকা মহানগর থেকে ফাইনালের জন্য নির্বাচিত আটটি দলের মধ্যে রাজউক উত্তরা মডেল কলেজ, আদমজী ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, গভঃ ল্যাবরেটরি হাই স্কুল, বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ, শেরেবাংলা বালিকা মহাবিদ্যালয়, টি অ্যান্ড টি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও সামসুল হক খান স্কুল অ্যান্ড কলেজ।
বিভাগ থেকে নির্বাচিত দলগুলোর মধ্যে নয়াবাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়-শেরপুর, সারদেশ্বরী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়-দিনাজপুর, আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন স্কুল অ্যান্ড কলেজ-বগুড়া, ব্লু-বার্ড স্কুল অ্যান্ড কলেজ-সিলেট, যশোর জিলা স্কুল, বরিশাল জিলা স্কুল, বান্দরবান ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর।
এর মধ্যে প্রথম রাউন্ডে বিজয়ী হয় ৮টি স্কুল। সেগুলো হলো- আদমজী ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, বান্দরবান ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, ব্লু-বার্ড স্কুল অ্যান্ড কলেজ-সিলেট, নয়াবাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়-শেরপুর, টি অ্যান্ড টি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর, আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন স্কুল অ্যান্ড কলেজ-বগুড়া ও সামসুল হক খান স্কুল অ্যান্ড কলেজ।
দ্বিতীয় রাউন্ডে প্রতিযোগিতা করে ৪টি স্কুল। এরা হলো- ব্লু-বার্ড স্কুল অ্যান্ড কলেজ-সিলেট, নয়াবাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়-শেরপুর, আদমজী ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ ও মজিদ জরিনা ফাউন্ডেশন স্কুল এন্ড কলেজ- শরীয়তপুর।

Copyright © 2020 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.